সূর্যগ্রহণ চন্দ্রগ্রহণ 2024 -2025 -2026

ক্যালেন্ডারে সূর্যগ্রহণ এবং চন্দ্রগ্রহণের তারিখ প্রতি বছর পরিবর্তন হতে থাকে এবং এগুলি বিভিন্ন স্থানে বিভিন্ন সময়ে দেখা যায়। তবে, আমি এখানে 2024, 2025 এবং 2026 সালের কিছু মুখ্য সূর্যগ্রহণ এবং চন্দ্রগ্রহণের তারিখ দেওয়া যাচ্ছে:

সূর্যগ্রহণ তালিকা 2024 – 2025 2026

তারিখসূর্যগ্রহণের ধরনমহাদেশের নাম যেখানে সূর্যগ্রহণ দেখা যাবে 
2 অক্টোবর, 2024বৃত্তাকার দক্ষিণ আমেরিকায় একটি বৃত্তাকার সূর্যগ্রহণ দেখা যাবে, এবং সেই সাথে অল্প করে সূর্যগ্রহণ দেখা যাবে দক্ষিণ আমেরিকায়, অ্যান্টার্কটিকা, প্রশান্ত মহাসাগর, আটলান্টিক মহাসাগর, উত্তর আমেরিকা
29 মার্চ, 2025অর্ধেকইউরোপ, এশিয়া, আফ্রিকা, উত্তর আমেরিকা, দক্ষিণ আমেরিকা, আটলান্টিক মহাসাগর, আর্কটিক মহাসাগর
21 সেপ্টেম্বর, 2025অর্ধেকঅস্ট্রেলিয়া, অ্যান্টার্কটিকা, প্রশান্ত মহাসাগর, আটলান্টিক মহাসাগর
ফেব্রুয়ারী 17, 2026বৃত্তাকার অ্যান্টার্কটিকায় একটি বৃত্তাকার সূর্যগ্রহণ সূর্যগ্রহণ দেখা যাবে, এবং সেই সাথে অল্প করে সূর্যগ্রহণ দেখা যাবে অ্যান্টার্কটিকা, আফ্রিকা, দক্ষিণ আমেরিকা, প্রশান্ত মহাসাগর, আটলান্টিক মহাসাগর এবং ভারত মহাসাগরে দৃশ্যমান হবে
12 আগস্ট, 2026সম্পূর্ণরূপেগ্রিনল্যান্ড, আইসল্যান্ড, স্পেন, রাশিয়া এবং পর্তুগালের একটি ছোট অঞ্চলে একটি সম্পূর্ণ সূর্যগ্রহণ দৃশ্যমান হবে, যখন একটি আংশিক সূর্যগ্রহণ ইউরোপ, আফ্রিকা, উত্তর আমেরিকা, আটলান্টিক মহাসাগর, আর্কটিক মহাসাগর এবং প্রশান্ত মহাসাগরে দৃশ্যমান হবে।

প্রতিটি গ্রহনের জন্য তালিকাভুক্ত তারিখ হল স্থানীয় তারিখ যেখানে গ্রহন হয়।

সূর্যগ্রহণের সময় যে আমল করবেন

তাই সূর্যগ্রহণ শেষ পর্যন্ত ‘সালাতুল কুসুফ’ পাঠ সুন্নত। সূর্যগ্রহণ শেষ হওয়ার আগে নামাজ শেষ করতে কোনো সমস্যা নেই। তবে সূর্যগ্রহণ শেষ পর্যন্ত বাকি সময়টুকুতে জিকির, দোয়া, তাওবা-ইসতেগফা, দান-সদকার দ্বারা উত্তম

সূর্যগ্রহণের সময় নবীজির আমল

সাধারণ হাজরত আবু মুসারা।) বলেন, নিউজি (সা.)- সময় সূর্যগ্রহণ হলে তিনি আশঙ্কায় যে কিয়ামতের মহাপ্রলয় আবার সংঘটিত হবে। তিনি (তাড়াতাড়ি) মসজিদে এলেন। অত্যন্ত দীর্ঘ কিয়াম সহ দীর্ঘ রুকু, সিজাদা নামাজ পড়তে পারে। (বর্ণনাকারী বলেন) আমি নবীজি (সা.)-কে এমন করতে আগে আর কখনো জানতাম। অতঃপর তিনি বললেন, ‘আল্লাহর ক্ষমতা নিদর্শন মৃত্যু বা জন্মের (ক্ষতি করার) জন্য না হয়। যখন তোমরা তা দেখবে, তখনই আতঙ্কিত হৃদয়ে আল্লাহ তালার জিকির ও ইস্তিগফারে মশগুল হবে। ’ (সহিহ সম্প্রদায় : ১৯৮৯) অন্য হাদিসে চন্দ্র বা সূর্যগ্রহণকে বিজয়ী সরকারের পক্ষ থেকে ভী প্রদর্শন হিসেবে উল্লেখ করে তা থেকে দ্রুত উদ্ধারে সাদকা করার কথা বলেছেন।

তাই সূর্যগ্রহণের সময় উদ্যান-উপভোগের উপলক্ষ মনে না করে ইবাদতে লিপ্ত হওয়া উচিত। কারণ উদ্দেশকে যুদ্ধের আশঙ্কার মুহুর্ত মনে করা। তাই সূর্য গ্রহণ শেষ পর্যন্ত ‘সালাতুল কুসুফ’ পড়া সুন্নত। সূর্যগ্রহণ শেষ হওয়ার আগে নামাজ শেষ করতে কোনো সমস্যা নেই। তবে সূর্যগ্রহণ শেষ পর্যন্ত বাকি সময়টুকুতে জিকির, প্রার্থনা, তাওবা-ইসতেগফা, দান-সদকার দ্বারা কাটানো উত্তম।

চন্দ্রগ্রহণ তালিকা 2024 – 2025 – 2026

তারিখচন্দ্রগ্রহণের ধরনমহাদেশের নাম যেখানে সূর্যগ্রহণ দেখা যাবে 
25 মার্চ, 2024Penumbralআমেরিকা
18 সেপ্টেম্বর, 2024অর্ধেকআমেরিকা, ইউরোপ, আফ্রিকা
14 মার্চ, 2025সম্পূর্ণরূপেপ্রশান্ত মহাসাগর, আমেরিকা, পশ্চিম ইউরোপ, পশ্চিম আফ্রিকা

চন্দ্র গ্রহণ সম্পর্কে নবজির (স.) নির্দেশ

অন্ধকার যুগে মানুষ মনে কর দুনিয়ায় বড় বড় ব্যক্তিত্বের অধিকারী লোকদের জন্য কোন অঘটন ঘটলে চন্দ্র বা সূর্যগ্রহণ হয়। রসুল পাসর (স.) ইবরাহিম ইবনে মুহাম্মদের পরবর্তী সূর্যগ্রহণ হলে সাহাবায়ে কেরাম তাবলি করছিলেন। রসুল (স.) চন্দ্র গ্রহণ ও সূর্যগ্রহণ সম্পর্কে তাদের সুস্পষ্ট বর্ণনা দেয়।

চন্দ্র গ্রহণের নামাজ

হাদিসে সূর্য গ্রহণের নামাজের মতো চন্দ্র গ্রহণের নমাজিও। রসুল (স.) এ নামাজ পড়তে দিয়েছেন। এ নামাজ পড়া করা সুন্নাত। ‘চন্দ্র গ্রহণের সময়’ নামাজ পড়া হবে। কেননা সুন্নাহ হচ্ছে, তখন শুধু নামাজ পড়া।’ (বাদায়উস সানাঈ ১/২৮২)

সূর্য ও চন্দ্র গ্রহণের সময় মোমিনদের ওয়ার্ল্ড ইবাদতে মগ্ন আপনার লেখক রসুল (স.)। আয়েশার (স.) হাদিস জানা যায়, এ সময় কার্যকর রসুল (স.) নামাজ থেকে শেষ হতে যেতে। দোয়া করতে দোয়া করুন। আবূ বকর (রা.) বর্ণনা করেন, ‘আমরা রসুল (স.)-এর কাছে কাছে পৌঁছান। এমন সময় সূর্যগ্রহণ শুরু হয়৷ রসুল (স.) তখন দাঁড়ালেন। নিজের চাদর টানতে তানতে দেখতে দেখতে পান। আমরা খুঁজি। তিনি আমাদের নিয়ে সূর্যাস্ত পর্যন্ত দুরাকাত নামাজ করেন। এর পর তিনি বলেন,

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Scroll to Top