মোবাইল নাম্বার দিয়ে লোকেশন ট্রাকিং বাংলাদেশ

মোবাইল নাম্বার দিয়ে লোকেশন ট্রাকিং আমরা অনেকেই করতে চায়। বিভিন্ন প্রয়োজনে আমাদের কারো লোকেশন ট্র্যাকিং করতে হয়। যেমন বাচ্চা স্কুলে গেলে অথবা দুর্গম কোন অঞ্চলে গেলে নিরাপত্তার জন্য আমাদের মোবাইল নাম্বার দিয়ে লোকেশন ট্র্যাকিং করার প্রয়োজন পড়ে।

প্রযুক্তির উন্নয়নের ফলে মোবাইলে বিভিন্ন ধরনের অত্যাধুনিক সেন্সর সংযুক্ত আছে যার দ্বারা লোকেশন ট্র্যাক করা যায়। আজকের পোস্টে আমরা এমন কিছু পদ্ধতি নিয়ে আলোচনা করবো যা অনুসরণ করে আপনি মোবাইল নাম্বার দিয়ে লোকেশন ট্র্যাকিং করতে পারবেন। তো দেরী না করে চলুন আমাদের আজকের আলোচনা শুরু করি।

মোবাইল নাম্বার দিয়ে লোকেশন ট্রাকিং করা কি সম্ভব?

হ্যা সম্ভব। বর্তমানে মোবাইলে কিছু অত্যাধুনিক সেন্সর আছে যার দ্বারা লোকেশন ট্র্যাক করা সম্ভব। বর্তমানে প্রায় সব জায়গাই মোবাইল টাওয়ার আছে। তাই আপনি মোবাইল নাম্বার দিয়ে লোকেশন ট্রাকিং করতে পারবেন। এছাড়া বর্তমানে কিছু অ্যাপ ব্যবহার করে সহজেই যে কারো লোকেশন ট্রাকিং করা যায়।

মোবাইল নাম্বার দিয়ে লোকেশন ট্রাকিং বাংলাদেশ
মোবাইল নাম্বার দিয়ে লোকেশন ট্রাকিং বাংলাদেশ

কিভাবে মোবাইল নাম্বার দিয়ে লোকেশন ট্রাকিং করবেন?

বর্তমানে প্রযুক্তির অগ্রগতির কারনে বিভিন্ন উপায়ে লোকেশন ট্র্যাক করা যায়। তবে সবথেকে সহজ উপায় নিয়ে আজ আমি আপনাদের সাথে আলোচনা করবো। মোবাইল নাম্বার দিয়ে লোকেশন ট্রাকিং আপনি সহজেই করতে পারবেন। এর জন্য আপনাকে কিছু পদক্ষেপ অনুসরণ করতে হবে। চলুন দেখে নিই কি কি উপায়ে আপনি মোবাইল দিয়ে লোকেশন ট্রাকিং করতে পারবেন।

বিকোজিন খেলে কি মোটা হয়?Becozin এর উপকারিতা ও অপকারিতা

ট্রুকলার অ্যাপ দিয়ে লোকেশন ট্রাকিং

ট্রুকলার বর্তমানে অনেক জনপ্রিয় একটি অ্যাপ। এই অ্যাপ লোকেশন ট্রাকিং করা ছাড়াও একটি নাম্বার সম্পর্কে বিভিন্ন কিছু জানতে পারবেন। এছাড়া আপনাকে কোন স্ক্যামার কল দিচ্ছে কি না সেটি ট্রুকলারের মাধ্যমে জানতে পারবেন। আপনার কলিং হিস্ট্রি ডিটিয়েলসে এখানে পেয়ে যাবেন। ট্রুকলার মোবাইল অ্যাপ ব্যবহার করে আপনি কিভাবে মোবাইল নাম্বার দিয়ে লোকেশন ট্রাকিং করতে পারবেন চলুন দেখে নিই।

১. ট্রুকলার অ্যাপটি প্রথমে আপনার মোবাইলে ইনস্টল 

করুন। গুগল প্লে স্টোরে অ্যাপটি পেয়ে যাবেন। এছাড়া বিভিন্ন থার্ড পার্টি ওয়েবসাইটেও অ্যাপটি পেয়ে যাবেন। আপনার সুবিধার্থে নিচে অ্যাপটির লিংক দেওয়া হলো।

২. মোবাইলে অ্যাপটি ইনস্টল দেওয়ার পর ট্রুকলার অ্যাপটি ওপেন করুন এবং পুর্বে সাইন আপ না করলে সাইন আপ করে নিন।

৩. মোবাইল নাম্বার দিয়ে সাইনআপ করার পর আপনার প্রোফাইলে নাম, ইমেইল, ঠিকানা ইত্যাদি সকল তথ্য দিয়ে প্রোফাইল সেটআপ করুন। অবশ্যই মোবাইল নাম্বার দিবেন এবং একটি শক্তিশালী পাসওয়ার্ড দিয়ে একাউন্ট খুলবেন।

৪. এরপর অ্যাপটি ওপেন করুন। ওপেন করার পর অনেক গুলো পারমিশন চাইবে। বিশেষ করে কন্ট্যাক্ট ইনফরমেশন এবং লোকেশন সম্পর্কিত পারমিশন চাইতে পারে। সবগুলো পারমিশন ওকে করে দিবেন। তা না হলে আপনি অ্যাপে ঢুকতে পারবেন না।

৫. এরপর অ্যাপটিতে প্রবেশ করলে আপনি আপনার সাম্প্রতিক সকল কল লিস্ট এবং কন্ট্যাক্ট ইনফরমেশন দেখতে পারবেন। এছাড়া আপনার কন্ট্যাক্ট লিস্টের প্রত্যেকটি নাম্বারের অনেক গুলো তথ্য সম্পর্কে অবগত হতে পারবেন। ইনকামিং এবং আউটগোয়িং সকল কল আপনি এই অ্যাপ থেকে দেখতে পারবেন।

৬. আপনি যে ব্যক্তির লোকেশন জানতে চান তার নাম্বার অবশ্যই আপনার কন্ট্যাক্ট লিস্টে থাকতে হবে। কন্ট্যাক্ট লিস্ট থেকে আপনি সার্চ বারে ক্লিক করে কাঙ্ক্ষিত ব্যক্তির নাম্বারটি পেয়ে যাবেন।

৭. নাম্বারে ক্লিক করার পর আপনার কাঙ্ক্ষিত ব্যক্তির অনেক ইনফরমেশন আপনি পেয়ে যাবেন। যেমন নাম্বারটি কোন দেশের এবং ঐ ব্যক্তি কোন দেশে আছে তা আপনি এই অ্যাপের মাধ্যমে জানতে পারবেন।

৮. ভিউ লোকেশন হিস্ট্রিতে ক্লিক করে আপনি ঐ ব্যক্তির সাম্প্রতিক সম্ভাব্য সকল লোকেশন দেখতে পারবেন। এছাড়া গুগল ম্যাপের সাহায্যে কাঙ্ক্ষিত ব্যক্তির সম্পূর্ণ সঠিক লোকেশন সম্পর্কে জানতে পারবেন।

ট্রুকলার অ্যাপ দিয়ে আপনি উপরোক্ত পদক্ষেপ দিয়ে খুব সহজেই মোবাইল নাম্বার দিয়ে লোকেশন ট্রাকিং করতে পারবেন।

এছাড়া মোবাইল নাম্বারের লোকেশন হিস্ট্রি সহ উক্ত মোবাইল নাম্বারটি আসল না নকল সকল কিছু আপনি এই অ্যাপের মাধ্যমে দেখতে পারবেন। মুলত এ কারণেই এই অ্যাপটি বর্তমানে অনেক জনপ্রিয়।

এছাড়া আপনি প্রিমিয়াম সাবস্ক্রিপশন কিনে যেকোনো দেশের নাম্বারে কথা বলা সহ আরোও অনেক তথ্য একটি মোবাইল নাম্বারের জানতে পারবেন।

Phone tracker by number অ্যাপের সাহায্যে মোবাইল নাম্বার দিয়ে লোকেশন ট্রাকিং করার পদ্ধতি

মোবাইল নাম্বার দিয়ে লোকেশন ট্রাকিং করার আরেকটি জনপ্রিয় অ্যাপ হলো Phone tracker by number ।

এই অ্যাপ লোকেশন ট্র্যাক করার জন্য বর্তমানে অনেক জনপ্রিয়। আপনি ছোট কয়েকটি পদক্ষেপ অনুসরণ করে খুব সহজেই  এই অ্যাপের সাহায্যে কাঙ্ক্ষিত ব্যক্তির লোকেশন ট্রাক করতে সক্ষম হবেন। চলুন দেখে নেই সেই পদক্ষেপ গুলো কি কি।

১. প্রথমে উল্লেখিত অ্যাপটি ইনস্টল করে নিন।

প্লে স্টোর সহ বিভিন্ন স্থানে অ্যাপটি পেয়ে যাবেন। আমরা সাধারণত সবাই যেহেতু প্লে স্টোর ব্যবহার করি তাই নিচে প্লে স্টোরের লিংক দেওয়া হলো।

২. এই অ্যাপটি ব্যবহার করতে হলে অবশ্যই আপনাকে ইমেইল, মোবাইল নাম্বার, পাসওয়ার্ড সহ গুরুত্বপূর্ণ তথ্য দিয়ে একটি একাউন্ট তৈরী করতে হবে।

অন্যথায় আপনি আপনার কাঙ্ক্ষিত ব্যক্তির লোকেশন কখনই ট্র্যাক করতে পারবেন না।

৩. এরপর অ্যাপটি আপনার মোবাইলের বিভিন্ন পারমিশন চাইবে। বিশেষ করে জিপিএস লোকেশন এবং কন্ট্যাক্ট ইনফরমেশন।

এই পারমিশন গুলো অবশ্যই দিবেন। তা না হলে আপনি অ্যাপটি কখনোই ব্যবহার করতে পারবেন না।

৪. এরপর আপনার কন্ট্যাক্ট লিস্টের কাঙ্ক্ষিত ব্যক্তিটির নাম্বার খুজে বের করুন।

এবার উক্ত নাম্বারে ক্লিক করার পর আপনি তার লোকেশন সহ বিভিন্ন ধরনের তথ্য পেয়ে যাবেন।

উপরোক্ত কিছু সহজ স্টেপ ফলো করেই আপনি Phone tracker by number অ্যাপটি ব্যবহার করে খুব সহজেই কোন ব্যক্তির লোকেশন ট্রাক করতে পারবেন।

মোবাইল নাম্বার দিয়ে লোকেশন ট্রাকিং সম্পর্কিত কিছু প্রশ্নের উত্তর

প্রশ্ন: মোবাইল নাম্বার দিয়ে লোকেশন ট্রাকিং করার অ্যাপের নাম কি?

উত্তর: বর্তমানে বিভিন্ন অ্যাপের সাহায্যে আপনি মোবাইল নাম্বার দিয়ে লোকেশন ট্র্যাক করতে পারবেন।

তবে ট্রুকলার সবগুলো অ্যাপের মধ্যে সবথেকে জনপ্রিয় এবং সঠিক তথ্য প্রদান করে। এছাড়া এই অ্যাপটি লোকেশন ছাড়াও একটি নাম্বারের বিভিন্ন তথ্য দিয়ে থাকে।

প্রশ্ন: মোবাইল নাম্বার দিয়ে ফেসবুক আইডি বের করা কি সম্ভব?

উত্তর: পূর্বে মোবাইল নাম্বার দিয়ে ফেসবুক আইডি বের করা যেত তবে সাম্প্রতিক সময়ে ফিচারটি বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে।

তবে ইমেইলের মাধ্যমে আপনি ফেসবুক আইডি বের করতে পারবেন।

প্রশ্ন: মোবাইল নাম্বার দিয়ে কি কোন নাম্বারের বিভিন্ন তথ্য বের করা যাবে?

উত্তর: হ্যাঁ আপনি মোবাইল নাম্বার দিয়ে সেই নাম্বারের বিভিন্ন তথ্য জানতে পারবেন। এর জন্য আপনি ট্রুকলার অ্যাপটি ব্যবহার করতে পারেন।

এই অ্যাপ ব্যবহার করে আপনি লোকেশন সহ নাম্বারটি কোন দেশের, কতদিন যাবত ব্যবহার করা হয়েছে, উক্ত নাম্বারটি কোন স্ক্যামারের কি না ইত্যাদি সকল বিষয় জানতে পারবেন।

প্রশ্ন: মোবাইল নাম্বার দিয়ে জাতীয় পরিচয় পত্রের তথ্য বের যায়?

উত্তর: না আপনি এটি করতে পারবেন না। এটি শুধু নিরপত্তা কর্মীরা করতে পারে। কারন এতে সহজেই যে কারো ক্ষতি করা সম্ভব তাই আপনি মোবাইল নাম্বার দিয়ে জাতীয় পরিচয় পত্রের তথ্য বের করতে পারবেন না।

তবে নতুন জাতীয় পত্রের আবেদন করার সময় আপনি মোবাইল নাম্বার ব্যবহার করতে পারেন।

আমার শেষ কথা মোবাইল নাম্বার দিয়ে লোকেশন ট্রাকিং সম্পর্কে

বর্তমানে প্রযুক্তির অগ্রগতির ফলে অনেক কিছু করা সম্ভবপর হয়েছে যা অতিতে একসময় কল্পনার বিষয় ছিলো।

ঠিক সেরকমই একটি কাজ হলো মোবাইল নাম্বার দিয়ে লোকেশন ট্রাকিং এখন আর কারো লোকেশন জানার জন্য আমাদের পুলিশ কর্তৃপক্ষের কাছে সরনাপন্ন হতে হয়না।

এখন কয়েকটি অ্যাপ এবং কিছু সহজ পদক্ষেপ অনুসরণ করেই আমরা মোবাইল নাম্বার দিয়ে যে কারো লোকেশন বের করতে পারি।

আশাকরি আজকের আর্টিকেলটি আপনার কাজে আসবে। অনেক সময় আমাদের কারোও লোকেশন জানার প্রয়োজন পড়ে। তাই এই আর্টিকেলটি সংরক্ষণ করে রাখুন যেনো প্রয়োজনে আপনি মোবাইল নাম্বার দিয়ে লোকেশন ট্রাকিং করতে পারেন।

আর্টিকেলটি ভালো লাগলে অবশ্যই বন্ধুদের মাঝে শেয়ার করবেন।

ধন্যবাদ সবাইকে।

1 thought on “মোবাইল নাম্বার দিয়ে লোকেশন ট্রাকিং বাংলাদেশ”

  1. Pingback: কিডনির পয়েন্ট কত হলে ভালো -

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Scroll to Top